1. admin@bd-journalist.com : বিডি জার্নালিস্ট : বিডি জার্নালিস্ট
  2. miraj20@gmail.com : নিজস্ব প্রতিবেদক : নিজস্ব প্রতিবেদক
  3. commercial.rased@gmail.com : Staff Reporter : Staff Reporter
  4. newuser@mail.com : Staff Reporter : Staff Reporter
শনিবার, ২৪ জুলাই ২০২১, ০৮:১৬ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
যুক্তরাষ্ট্রকে দেখে নেয়ার হুমকি তালেবানের ডেঙ্গু রোগির নতুন রেকর্ড রাজধানীতে ১৪ দিন কারখানা বন্ধ নিয়ে চিন্তিত চট্টগ্রাম বন্দর ঈদের পরের লকডাউনে গার্মেন্টস ও শিল্পকারখানার বিষয়ে যে সিদ্ধান্ত নিল সরকার অক্সিজেনের চাহিদা বাড়ায় ব্যবসায়ীরা আমদানি বাড়িয়েছেন ভারত থেকে জেনে নিন মহামারিতে কোন বয়সের কতো জনের মৃত্যু হয়েছে এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষা নেয়া হবে নতুন নিয়মে করোনা টিকা কার্যক্রমে সেবা দিচ্ছে টুঙ্গিপাড়া রোভার স্কাউট স্বাস্থ্যমন্ত্রীর ভাগ্নের দুর্নীতি : হাসাপাতালের বাথরুমের ১টি লাইটের দাম ৩ হাজার ৮৪৩ টাকা! বিশ্বনাথে ভূঁয়া সাংবাদিক প্রতারক বরসহ জনতার হাতে আটক:মুচলেকা দিয়ে মুক্তি

বিএসএস পাস সিএনজি চালক সার্টিফিকেট নিলামে দিতে প্রেসক্লাবের সামনে !

মিরাজ হোসেন বার্তা সম্পাদক
  • আপডেট সময় সোমবার, ৫ জুলাই, ২০২১

করোনা মহামারির কারনে দেশে সরকার ঘোষিত কঠোর লগডাউনের আজ পঞ্চম দিন চলছে।
আজ সোমাবার সকাল ১১ টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে এক ব্যাক্তি হঠাৎ প্লেকার্ড নিয়ে দাড়িয়ে আছে।
তিনি পেশায় একজন সি এনজি চালক।
তার নাম মোঃ ফিরোজ আলী।
তার গ্রামের বাড়ি লাল মনিরহাট জেলার কালীগঞ্জ থানার তুষভান্ডার ইউনিয়নের কাঞ্চন শ্বর গ্রামে।
তিনি পড়ালেখা শেষ করে ২০১১ সালে।
২০১১ সালে বি এস এস পাশ করেন তিনি।
এরপর সরকারি চাকরির জন্য অনেক চেষ্টা করলেও মিলেনি চাকরি এরপর তিনি রাজধানীর ঢাকায় আসেন ২০১২ সালে।
এরপর তিনি রিকশা চালিয়ে মাস্টার্সে ভর্তি হন বগুড়া আজিজুল হক কলেজে, সেখানেও বাধা, রিকশা চালিয়ে যা আয় হয় , তা দিয়ে ঠিকমত সংসার চালানো কস্ট হয় তার।
ফিরোজ আলী পরিবারের বড় ছেলে।
খোজ নিয়ে জানা যায় তার পরিবারের ২ ভাই তিন বোনের বড় ফিরোজ আলী।
২০১৩ সালে একটি ঔষধ কম্পনির চাকরিতেও যোগ দিয়েছিলেন সেখানে আট মাস চাকরি করার পর সেখান থেকেও চাকরি চলে যায় তার, এরপর তিনি ২০১৭ সালে সি এনজি চালক হিসেবেই যোগ দেন ঢাকায়। টানা চারবছর সি এনজি চালিয়ে সংসার চালিয়ে আসছিলেন তিনি।
করোনা মহামারির কারনে, দেশে সর্বাত্মক লকডাউন চলায়, সেই সি এনজিটিও বন্ধ থাকায়।
দুই দিন না খেয়ে কোমরে গামছা বেধে তার অর্জিত সকল সার্টিফিকেট নিয়ে, জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে এসে সেই সার্টিফিকেট গুলো নিলামে দিতে এসেছেন। তার বাবার দুটি কিডনি সমস্যা হওয়ায় তিনি আর্থিক সংকটে পড়ে কোনো উপায় না পেয়ে এসেছেন।তার ভাইবোনের চারজনই গ্রাজুয়েট কমপ্লিট।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2021 bd-journalist.com
Theme Customized By newspadma.Com